সিঙ্গারা ইতিহাস

সিঙ্গারা ইতিহাস

গরম গরম তেলে ভাজার প্রতি বাঙালির টান বরাবরই। তেলেভাজা মানে চপ, সিঙ্গারা দেখলেই যেন আর লোভ সামলানো যায় না। সব বয়সী মানুষের কাছেই সিঙ্গারা প্রিয় একটি খাবার। হালকা খাবার হিসেবে সিঙ্গারা সব মানুষের কাছেই বেশ জনপ্রিয়। সকালে বা বিকালে গরম গরম সিঙ্গারা খেতেই অনেকে বেশ পছন্দ করেন। এই সিঙ্গারার জন্ম হল কী ভাবে?

সিঙ্গারার ইতিহাস অনেক পুরনো। এর জন্মস্থান কিন্তু বাংলাদেশ কিংবা ভারত নয়। বলা হয়, ফার্সি শব্দ ‘সংবোসাগ’ থেকেই এই সিঙ্গারার শব্দের উৎপত্তি।

আবার কোনও কোনও ইতিহাসবিদদের দাবি, গজনবী সাম্রাজ্যে সম্রাটের দরবারে এক ধরনের নোনতা পেস্ট্রি পরিবেশন করা হতো। যার মধ্যে কিমা, শুকনো বাদাম জাতীয় কিছু দেওয়া হতো।

ইতিহাসবিদদের মতে, ভারতে ২ হাজার বছর আগে সিঙ্গারার আবির্ভাব।

বাংলাদেশে আসার পর সিঙ্গারার অনেক পরিবর্তন হয়। বাংলাদেশে সিঙ্গারাকে আরও সুস্বাদু করে তোলার জন্য তার মধ্যে মরিচ এবং কিছু মশলা ব্যবহার করা হয়।

১৬ শতকে পর্তুগিজরা যখন এ দেশে আলুর ব্যবহার শুরু করার পর থেকে সিঙ্গারার মধ্যে আলু দেওয়ার রীতি চালু হয়।

বাংলাদেশে বিভিন্ন প্রান্তে আলাদা আলাদা স্বাদের সিঙ্গারা পাওয়া যায়। কোথাও পনির ব্যবহার করা হয় তো, কোথাও শুকনো ফল। এখন আবার চাউমিনের পুর দিয়েও সিঙ্গারা তৈরি করা হয়।

তবে আলুর পুর দেওয়া সিঙ্গারার চলই বেশি।

 

আপনার ফেসবুক একাউন্ট ব্যবহার করে মতামত প্রদান করতে পারেন

পাগলের প্রলাপ

আমার নিঃশব্দ কল্পনায় দৃশ্যমান প্রতিচ্ছবি, আমার জীবনের ঘটনা, আমার চারপাশের ঘটনার কেন্দ্রবিন্দু থেকে লেখার চেষ্টা করি। প্রতিটি মানুষেরই ঘন কালো মেঘে ডাকা কিছু মুহূর্ত থাকে, থাকে অনেক প্রিয় মুহূর্ত এবং একান্তই নিজস্ব কিছু ভাবনা, স্বপ্ন। প্রিয় মুহূর্ত গুলো ফিরে ফিরে আসুক, মেঘে ডাকা মুহূর্ত গুলো বৃষ্টির সাথে ঝরে পড়ুক। একান্ত নিজস্ব ভাবনা গুলো একদিন জীবন্ত হয়ে উঠবে সেই প্রতীক্ষাই থাকি।

Create Account



Log In Your Account